আজ শ্রীলংকার মুখোমুখি ইংল্যান্ড

দুই দলের বিশ্বকাপ পারফরম্যান্সে পার্থক্য রাত আর দিন। একদিকে ইংল্যান্ড ৫ ম্যাচে ৪ জয় নিয়ে পয়েন্ট টেবিলের দ্বিতীয় স্থানে আছে। এখন পর্যন্ত উড়ন্ত পারফরম্যান্স করে চলেছে তারা। অন্য দিকে শ্রীলঙ্কা ৫ ম্যাচে একটি মাত্র জয় পেয়েছে। তাদের দুটি ম্যাচ বৃষ্টিতে ভেসে যাওয়ায় পয়েন্ট হয়েছে ৪। এই অবস্থায় আজ হেডিংলিতে মুখোমুখি হচ্ছে ইংল্যান্ড ও শ্রীলঙ্কা। বাংলাদেশ সময় সাড়ে তিনটা থেকে শুরু হবে ম্যাচ।

ইংল্যান্ড একটি মাত্র ম্যাচ হেরেছে; পাকিস্তানের বিপক্ষে। এ ছাড়া সব প্রতিপক্ষকেই অনায়াসে হারিয়েছে তারা। সর্বশেষ ম্যাচে আফগানিস্তানের বিপক্ষে নানারকম রেকর্ড নতুন করে লিখেছে তারা। অন্যদিকে নিউজিল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে বড় ব্যবধানে হেরেছে শ্রীলঙ্কা। সেই সাথে আফগানিস্তানের বিপক্ষে হারতে হারতে পেয়েছে এক জয়।

ইংল্যান্ডের বিপক্ষে জিততে হলে শ্রীলঙ্কাকে আজ তাদের চেনা চেহারা ছেড়ে বেরিয়ে এসে অসামান্য কিছু করতে হবে। আর সেটা করার শেষ সুযোগ আজ তাদের জন্য। কারণ এই ম্যাচে হেরে গেলে কার্যত সেমিফাইনালে ওঠার লড়াই শেষ হয়ে যাবে দলটি

ইংল্যান্ডের জন্য একটা দুশ্চিন্তা হলো, তাদের বহুল আলোচিত বোলিং লাইনআপ সেভাবে জ্বলে উঠতে পারছে না। এমনকি তারা আফগানিস্তানের সাধারণ ব্যাটিংয়ের ১০ উইকেটও তুলে নিতে পারেনি। তবে এটা ঠিক যে, ইংলিশ ব্যাটসম্যানরা আছেন দারুণ ফর্মে। এখন পর্যন্ত বিশ্বকাপের সর্বোচ্চ ১০ রান সংগ্রাহকের মধ্যে চার জনই ইংল্যান্ডের ব্যাটসম্যান—জো রুট, এউইন মরগ্যান, জনি বেয়ারস্টো ও জেসন রয়। এর মধ্যে রয় অবশ্য অনেকটাই অনিশ্চিত হয়ে পড়েছেন ইনজুরির জন্য। ইংল্যান্ডের এই ইনফর্ম ব্যাটিংয়ের পরীক্ষা নেওয়ার জন্য আজ তৈরি থাকবেন শ্রীলঙ্কার লাসিথ মালিঙ্গা, নুয়ান প্রদীপরা। শ্রীলঙ্কার বোলিং বিভাগে এই দুজনই কেবল ইতিবাচক পারফর্ম করছেন। শ্রীলঙ্কার ওপেনার দুজন ভালো ফর্মে আছেন। কিন্তু তারা ইনিংস লম্বা করতে পারছেন না। এ ছাড়া পরের দিকের ব্যাটসম্যানরা এসে সমর্থনও দিতে পারছেন না। সৌজন্যে – ইত্তেফাক অনলাইন।

উত্তর দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here